ফ্লেক্সিলোড একাউন্ট খোলার নিয়ম - এক সিম দিয়ে সব সিমে ফ্লেক্সিলোড

আপনারা কি ফ্লেক্সিলোড একাউন্ট খোলার নিয়ম বা গ্রামীণফোন ফ্লেক্সিলোড করার নিয়ম ও এক সিম দিয়ে সব সিমে ফ্লেক্সিলোড সম্পর্কে জানতে চান? তাহলে আমাদের আজকের এই পোস্টটি আপনাদের জন্য। আজকে আমরা আলোচনা করব, বাংলালিংক ফ্লেক্সিলোড সিম বা গ্রামীণফোন ফ্লেক্সিলোড সিম এবং এক সিম দিয়ে সব সিমে ফ্লেক্সিলোড সম্পর্কে।

তাহলে চলুন দেরি না করে জেনে নেই, ফ্লেক্সিলোড একাউন্ট খোলার নিয়ম এবং এক সিম দিয়ে সব সিমে ফ্লেক্সিলোড সম্পর্কে।

সূচিপত্রঃ ফ্লেক্সিলোড একাউন্ট খোলার নিয়ম - এক সিম দিয়ে সব সিমে ফ্লেক্সিলোড

ফ্লেক্সিলোড একাউন্ট খোলার নিয়ম

আজকের পোস্টে আমরা আলোচনা করব ফ্লেক্সিলোড একাউন্ট খোলার নিয়ম সম্পর্কে। ফ্লেক্সিলোড ব্যবসা শুরু করার আগে প্রথমত আপনাকে আগে ফ্লেক্সিলোড একাউন্ট খুলতে হবে। ফ্লেক্সিলোড একাউন্ট খোলার নিয়ম অনুযায়ী একটা একাউন্ট খুলে আপনি ব্যবসা শুরু করতে পারবেন। তাই ফ্লেক্সিলোড ব্যবসা শুরু করার আগে আপনাকে যে বিষয়গুলো প্রতি প্রথমে প্রস্তুতি নিতে হবে এবং নিয়ম-নীতিগুলো আলোচনা করব। তাহলে ফ্লেক্সিলোডের বিষয়ে আপনার কাছে স্পষ্ট হবে।

আরো পড়ুনঃ হাত পা ঠান্ডা হয়ে যায় কেন - জ্বর হলে হাত পা ঠান্ডা হয় কেন

তাই ফ্লেক্সিলোড ব্যবসা শুরু করার জন্য আপনাকে যে কোন একটা সিমে ফ্লেক্সিলোড একাউন্ট খোলার নিয়ম মেনে একাউন্ট করতে হবে। তারপর ট্রেড লাইসেন্স করা লাগবে। ফ্লেক্সিলোডের ব্যবসা শুরু করার ক্ষেত্রে ট্রেডের ব্যবস্থা আপনাকে করা লাগবে। এছাড়া আপনি এ ব্যবসা নাও করতে পারেন। ট্রেড লাইসেন্স করার জন্য দোকানের যাবতীয় কাগজপত্র এবং আপনার ভোটার আইডি কার্ড লাগবে। সুতরাং এসব বিষয়ে খেয়াল করে আপনি ট্রেড লাইসেন্স করে নিতে পারেন।

এক সিম দিয়ে সব সিমে ফ্লেক্সিলো

আজকের পোস্টটা আমাদের ফ্লেক্সিলোড একাউন্ট খোলার নিয়ম এবং এক সিম দিয়ে সব সিমে ফ্লেক্সিলোড করার বিষয়। অনেকেই প্রশ্ন জাগে মনে যে এক সিম দিয়ে সব সিমে ফ্লেক্সিলোড করা যায় কি না। আমাদের আজকের এই পোষ্টটি তাদের জন্য। আজকের পোস্টে আমি আপনাদেরকে জানিয়ে দেবো এক সিম দিয়ে সব সিমে ফ্লেক্সিলোড করা সম্ভব হয় কি না। তাহলে চলুন জেনে নিই এক সিম দিয়ে সব সিমে ফ্লেক্সিলোড করা যায় কিনা।

বর্তমান সময়ে একটা সিম দিয়েই এখন সকল সিমের ফ্লেক্সিলোড করা সম্ভব। এমনকি একটা অ্যাপস এর মাধ্যমে ও সবগুলো সিমে ফ্লেক্স লোড করা যায়। সে ক্ষেত্রে কমিশনটা একটু কম পাওয়া যায়। তাই সবচাইতে ভালো হয় যদি আলাদা আলাদা সিম দিয়ে ফ্লেক্সিলোডের ব্যবসা শুরু করা। ফলে লাভও বেশি হবে এবং সুবিধা ও বেশি পাওয়া যাবে।

ফ্লেক্সিলোড সিমের দাম কত

এখন ফ্লেক্সিলোড ব্যবসার শুরু করার আগে অনেকের মনে প্রশ্ন আসে ফ্লেক্সিলোড সিমের দাম কত? কোন ধরনের টাকা পয়সা ফ্লেক্সিলোড সিমের জন্য দিতে হয় কি না? সে ক্ষেত্রে আমার জানা মতে লেখিলোড সিমের জন্য কোন ধরনের টাকা পয়সা প্রদান করা লাগে না। বরং ফ্লেক্সিলোড সিম বা ফ্লেক্সিলোড করার জন্য যাবতীয় সুযোগ-সুবিধা কোম্পানি ফ্রিতে আপনাকে দিবে। যা দিয়ে আপনি আপনার ফ্লেক্সিলোডের ব্যবসা অনায়াসেই শুরু করতে পারবেন। ফ্লেক্সিলোডের ব্যবসা করার ক্ষেত্রে প্রথমে আপনাকে শুধু ফ্লেক্সিলোড একাউন্ট খোলার নিয়ম কানুন এবং এক সিম দিয়ে সব সিমে ফ্লেক্সিলোড করা যায় কিনা এসব বিষয়ে বিস্তারিত জেনে নিতে হবে। তাহলেই আপনি কোন পুঁজি ছাড়াই ফ্লেক্সিলোড ব্যবসা শুরু করতে পারবেন।

গ্রামীণফোন ফ্লেক্সিলোড সিম| গ্রামীণফোন ফ্লেক্সিলোড করার নিয়ম

এখন গ্রামীণফোন ফ্লেক্সিলোড সিম এবং গ্রামীণফোন ফ্লেক্সিলোড করার নিয়ম সম্পর্কে আলোচনা করব। গ্রামীণফোন হচ্ছে বাংলাদেশের সর্বপ্রথম সম্মানিত গ্রাহকদের জন্য নিয়ে আসা বিল পেমেন্ট এর অত্যাধুনিক একটা ইলেকট্রনিক্স সিস্টেম হচ্ছে ফ্লেক্সিলোড। ফ্লেক্সিলোড এর মাধ্যমে আপনাদের জীবনে স্বাচ্ছন্দ্য নিয়ে আসে। লম্বা সময় ধরে এখন আর ব্যাংকে বিল জমা দেওয়ার জন্য লাইনে দাঁড়িয়ে থাকার প্রয়োজন হয় না। বিল পেমেন্টের দিন মিস করার দরকার হয় না। এছাড়া ফ্লেক্সিলোডের সাহায্যে রিচার্জ করার কিছুক্ষণের মধ্যেই বার হয়ে যাওয়া ফোন আপনা-আপনি আনবার হয়ে যায়।

আরো পড়ুনঃ জামায়াতে নামাজ না পড়ার শাস্তি

গ্রামীণফোন ফ্লেক্সিলোড করার নিয়ম গুলো নিচে দেয়া হলঃ

  • আপনাকে প্রথমে পার্শ্ববর্তী রিটেলার বা ডিলার প্রতিষ্ঠানে গিয়ে যোগাযোগ করা লাগবে
  • সেখানে আপনার যাবতীয় প্রয়োজনীয় কাগজপত্র যেমন, আপনার ছবি, ট্রেড লাইসেন্স এবং ভোটার আইডি কার্ডের ফটোকপি জমা দেয়া লাগবে
  • এ সকল কাগজপত্র মূল্যায়ন করে আপনাকে তারা একটা ফ্লেক্সিলোড সিম প্রদান করবেন
  • কাস্টমার হেল্পার রা বা রিটেইলার রা আপনাকে আপনার চাহিদা অনুযায়ী সপ্তাহের নির্দিষ্ট দিনগুলোতে ব্যালেন্স প্রদান করবে।

বাংলালিংক ফ্লেক্সিলোড সিম

বর্তমান আধুনিক বিশ্বে মানুষ আরো কোন কিছুতেই পিছিয়ে ৫নেই। সবকিছুতেই মানুষ এখন প্রযুক্তি ব্যবহারে এগিয়ে যাচ্ছে। এখন ফ্লেক্সিলোড অ্যাকাউন্ট খোলার নিয়ম এবং এক সিম দিয়ে সব সিমে ফ্লেক্সিলোড করার বিষয়ে আলোচনা করেছি। এখন জানবো বাংলালিংক ফ্লেক্সিলোড সিম এর বিষয়ে। দেশের মোবাইল ফোন অপারেটর গুলো একটার পর একটা নতুন খবর দিয়ে চলেছে। বাংলালিংক ও কোন অংশে পিছিয়ে নেই। তারা সম্প্রতি ভিন্ন ভিন্ন নতুন ডাটা প্যাক এবং ক্যাম্পেইন চালুর সাথে একটা পলিসি চেঞ্জ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। অনেকের কাছে ভালো না লাগতেও পারে।

আরো পড়ুনঃ শুয়ে নামাজ পড়ার নিয়ম - মাটিতে বসে নামাজ পড়ার নিয়ম

আজকে আমরা একটা পলিসি চেঞ্জ নিয়ে কথা বলব।। বাংলালিংক ফ্লেক্সিলোড সিম এর মাধ্যমে ২০ টাকার কম রিচার্জ করতে পারবেন না। আগে আপনি চাইলেও ১০ টাকা রিচার্জ করতে পারতেন। তো নতুন পলিসি চেঞ্জ করে এই নিয়ম করা হয়েছে। যা অনেকের ক্ষেত্রে এটা ভালো না লাগতে পারে। ইতোমধ্যে বাংলালিংক সহ রবি, এয়ারটেল এবং গ্রামীণফোন সহ সকল অপারেটরে বিশ টাকার কম ফ্লেক্সিলোডের সুযোগ দেয়া হয়েছে। অর্থাৎ সেসব অপারেটরগুলোতে সর্বনিম্ন রিচার্জ ২০ টাকা বাধা হয়েছে।

শেষ কথাঃ ফ্লেক্সিলোড একাউন্ট খোলার নিয়ম - এক সিম দিয়ে সব সিমে ফ্লেক্সিলোড

ফ্লেক্সিলোড একাউন্ট খোলার নিয়ম এবং এক সিম দিয়ে সব সিমে ফ্লেক্সিলোড সম্পর্কে জানতে হলে আমাদের পুরো পোষ্টটি ভালোভাবে পড়ুন, আশা করি সবকিছু ভালোভাবে বুঝতে পারবেন। ফ্লেক্সিলোড একাউন্ট খোলার নিয়ম এবং এক সিম দিয়ে সব সিমে ফ্লেক্সিলোড সম্পর্কে সবার আগে জানতে হলে আমাদের সাথেই থাকুন।

আজ আর নয়, ফ্লেক্সিলোড একাউন্ট খোলার নিয়ম এবং এক সিম দিয়ে সব সিমে ফ্লেক্সিলোড সম্পর্কে আপনার কোন কিছু জানার থাকলে আমাদের কমেন্ট বক্সে জানাতে পারেন। আশা করি আমরা আপনার উত্তরটি দিয়ে দেবো। তাহলে আমাদের আজকের এই ফ্লেক্সিলোড একাউন্ট খোলার নিয়ম এবং এক সিম দিয়ে সব সিমে ফ্লেক্সিলোড সম্পর্কে পোস্টটি যদি আপনাদের ভালো লেগে থাকে, তাহলে আপনার ফেসবুক ইন্সটাগ্রাম প্রোফাইলে আমাদের পোস্টটি শেয়ার করতে পারেন। ধন্যবাদ। ২৩৭৬৬

Next Post Previous Post
No Comment
Add Comment
comment url